ঢাকা , শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দেশে অবস্থান না করেও হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি!

প্রতিনিধির নাম
  • প্রকাশের সময় : ০৪:১৭:৩৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২১ অগাস্ট ২০২৩
  • / ৬০ বার পড়া হয়েছে

তিমির বনিক,মৌলভীবাজার প্রতিনিধি:

মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলা বিএনপি’র সহ ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক ও মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি নাদের আহমদ চলতি বছরের গত ৩০ জুলাই থেকে ১১ আগস্ট পর্যন্ত মধ্যপ্রাচ্যের দুবাইয়ে অবস্থান করছিলেন। কিন্ত বড়লেখায় ৫ আগস্টের একটি হত্যা চেষ্টা মামলায় মা’সহ তাকে আসামি করায় এলাকায় তোলপাড় শুরু হয়েছে। তবে রোববার বড়লেখা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত পাসপোর্টের এরাইভেল ও ডিপারচাল সিল, ভিসা এবং বিমান টিকেট পর্যালোচনা শেষে তাদের জামিন মঞ্জুর করেছেন।

উল্লেখ্য , জানা গেছে, গত ৫ আগস্ট ভোরবেলা বড়লেখা শহরের হাটবন্দ এলাকায় নিজ বাসার প্রাঙ্গণে দুর্বৃত্তের হামলার শিকার হন যুক্তরাজ্য প্রবাসী ফয়জুর রহমান ওরফে ফাইজ মো. রহমান (৬৬)। রক্তাক্ত অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। পরদিনই চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেন। ঘটনার ১২ দিন পর গত ১৭ আগস্ট রাতে তিনি জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি ও উপজেলা বিএনপি’র সহছাত্র বিষয়ক সম্পাদক নাদের আহমদ ও তার মা শফি আক্তার খানম’কে অভিযুক্ত করে হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি করে বড়লেখা থানায় মামলা করেন। ছাত্রদল নেতা নাদের আহমদ অভিযোগ করেন রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে ও মামলার বাদী যুক্তরাজ্য প্রবাসী ফয়জুর রহমান ওরফে ফাইজ মো. রহমানের সাথে মামলা-মোকদ্দমা সংক্রান্ত পূর্ব বিরোধের জেরে দেশে না থাকা সত্ত্বেও পরিকল্পিতভাবে মা সহ তাকে হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি করা হয়েছে। আদালতের জিআরও পিষুষ কান্তি দাস জানান, জিআর-১২৩/২৩ নম্বরের হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি নাদের আহমদ ও তার মা শফি আক্তার খানম রোববার আদালতে স্বশরীরে হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করেন। কাগজপত্র পর্যালোচনা ও শুনানি শেষে আদালত তাদেরকে জামিন মঞ্জুর করেন।

ট্যাগস :

এই নিউজটি শেয়ার করুন

দেশে অবস্থান না করেও হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি!

প্রকাশের সময় : ০৪:১৭:৩৫ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২১ অগাস্ট ২০২৩

তিমির বনিক,মৌলভীবাজার প্রতিনিধি:

মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলা বিএনপি’র সহ ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক ও মৌলভীবাজার জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি নাদের আহমদ চলতি বছরের গত ৩০ জুলাই থেকে ১১ আগস্ট পর্যন্ত মধ্যপ্রাচ্যের দুবাইয়ে অবস্থান করছিলেন। কিন্ত বড়লেখায় ৫ আগস্টের একটি হত্যা চেষ্টা মামলায় মা’সহ তাকে আসামি করায় এলাকায় তোলপাড় শুরু হয়েছে। তবে রোববার বড়লেখা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত পাসপোর্টের এরাইভেল ও ডিপারচাল সিল, ভিসা এবং বিমান টিকেট পর্যালোচনা শেষে তাদের জামিন মঞ্জুর করেছেন।

উল্লেখ্য , জানা গেছে, গত ৫ আগস্ট ভোরবেলা বড়লেখা শহরের হাটবন্দ এলাকায় নিজ বাসার প্রাঙ্গণে দুর্বৃত্তের হামলার শিকার হন যুক্তরাজ্য প্রবাসী ফয়জুর রহমান ওরফে ফাইজ মো. রহমান (৬৬)। রক্তাক্ত অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। পরদিনই চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেন। ঘটনার ১২ দিন পর গত ১৭ আগস্ট রাতে তিনি জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি ও উপজেলা বিএনপি’র সহছাত্র বিষয়ক সম্পাদক নাদের আহমদ ও তার মা শফি আক্তার খানম’কে অভিযুক্ত করে হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি করে বড়লেখা থানায় মামলা করেন। ছাত্রদল নেতা নাদের আহমদ অভিযোগ করেন রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে ও মামলার বাদী যুক্তরাজ্য প্রবাসী ফয়জুর রহমান ওরফে ফাইজ মো. রহমানের সাথে মামলা-মোকদ্দমা সংক্রান্ত পূর্ব বিরোধের জেরে দেশে না থাকা সত্ত্বেও পরিকল্পিতভাবে মা সহ তাকে হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি করা হয়েছে। আদালতের জিআরও পিষুষ কান্তি দাস জানান, জিআর-১২৩/২৩ নম্বরের হত্যা চেষ্টা মামলার আসামি নাদের আহমদ ও তার মা শফি আক্তার খানম রোববার আদালতে স্বশরীরে হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করেন। কাগজপত্র পর্যালোচনা ও শুনানি শেষে আদালত তাদেরকে জামিন মঞ্জুর করেন।