ঢাকা , শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বগুড়ায় তালাকে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত বড় ভাই!

আতিকুল ইসলাম, ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : ০৪:১৩:০১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ডিসেম্বর ২০২২
  • / ১৪৫ বার পড়া হয়েছে

আতিকুল ইসলাম, ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি || বগুড়ায় তালাকে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত বড় ভাই!!

বগুড়ার ধুনটে বিয়ে বিচ্ছেদে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত হয়েছেন বড় ভাই। এ ঘটনায় অভিযুক্তকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন স্থানীয় লোকজন।

মঙ্গলবার (২৭ ডিসেম্বর) সকাল ৯টার দিকে উপজেলার নিমগাছি মধ্যপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। দুই ভাই একই গ্রামের জনাব আলীর ছেলে। সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, স্বপন মিয়া দুই সন্তানের জনক। সম্প্রতি তার স্ত্রীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নেন। মঙ্গলবার সকালে বিয়ে বিচ্ছেদ বাধা দেন বড় ভাই কামাল পাশা (৬০)। এ নিয়ে দুই ভাইয়ের কথা-কাটাকাটি হয়।

একপর্যায়ে স্বপন মিয়া ক্ষুব্ধ হয়ে ঘর থেকে ধারালো ছুরি এনে কামাল পাশাকে আঘাত করেন। পরে স্থানীয়রা ছুটে এসে স্বপনকে আটক করেন। আহত কামাল পাশার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে স্বপন মিয়া প্রতিদিনের পোস্টকে বলেন, বউয়ের সঙ্গে আমার সম্পর্ক ভালো না। তাকে তালাক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কিন্তু বড় ভাই তালাক দিতে নিষেধ করে মঙ্গলবার সকালে বকাঝকা করে। এ কারণে রাগের মাথায় তাকে ছুরি দিয়ে আঘাত করেছি।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল ইসলাম প্রতিদিনের পোস্টকে জানান, স্বপনকে থানা হেফাজতে নিয়ে আসা হয়েছে। আহত ব্যক্তির চিকিৎসার খোঁজখবর নেওয়া হয়েছে।

এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনী এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ /প্রতিদিনের পোস্ট

এই নিউজটি শেয়ার করুন

বগুড়ায় তালাকে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত বড় ভাই!

প্রকাশের সময় : ০৪:১৩:০১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৮ ডিসেম্বর ২০২২

আতিকুল ইসলাম, ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি || বগুড়ায় তালাকে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত বড় ভাই!!

বগুড়ার ধুনটে বিয়ে বিচ্ছেদে বাধা দেওয়ায় ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে আহত হয়েছেন বড় ভাই। এ ঘটনায় অভিযুক্তকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছেন স্থানীয় লোকজন।

মঙ্গলবার (২৭ ডিসেম্বর) সকাল ৯টার দিকে উপজেলার নিমগাছি মধ্যপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। দুই ভাই একই গ্রামের জনাব আলীর ছেলে। সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, স্বপন মিয়া দুই সন্তানের জনক। সম্প্রতি তার স্ত্রীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নেন। মঙ্গলবার সকালে বিয়ে বিচ্ছেদ বাধা দেন বড় ভাই কামাল পাশা (৬০)। এ নিয়ে দুই ভাইয়ের কথা-কাটাকাটি হয়।

একপর্যায়ে স্বপন মিয়া ক্ষুব্ধ হয়ে ঘর থেকে ধারালো ছুরি এনে কামাল পাশাকে আঘাত করেন। পরে স্থানীয়রা ছুটে এসে স্বপনকে আটক করেন। আহত কামাল পাশার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ বিষয়ে স্বপন মিয়া প্রতিদিনের পোস্টকে বলেন, বউয়ের সঙ্গে আমার সম্পর্ক ভালো না। তাকে তালাক দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কিন্তু বড় ভাই তালাক দিতে নিষেধ করে মঙ্গলবার সকালে বকাঝকা করে। এ কারণে রাগের মাথায় তাকে ছুরি দিয়ে আঘাত করেছি।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল ইসলাম প্রতিদিনের পোস্টকে জানান, স্বপনকে থানা হেফাজতে নিয়ে আসা হয়েছে। আহত ব্যক্তির চিকিৎসার খোঁজখবর নেওয়া হয়েছে।

এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনী এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ /প্রতিদিনের পোস্ট