ঢাকা , শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

‘বাবা কতৃক মেয়ের মৃ;ত সন্তান প্র;সব:

প্রতিনিধির নাম
  • প্রকাশের সময় : ০৮:২৩:২৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ জুন ২০২৪
  • / ২৯ বার পড়া হয়েছে
তিমির বনিক, মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে বাবার কুদৃষ্টির লালসার শিকার হয়ে মৃ;ত সন্তান প্র;সব করেছে প্রতিবন্ধী মেয়ে। বুধবার (৫ জুন) উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ গোলের হাওর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, পিতা হারুন মিয়া দীর্ঘ দিন যাবত তার অসুস্থ প্রতিবন্ধী মেয়েকে ধ;র্ষণ করে আসছে। ধ;র্ষ ণের ফলে ভিকটিম মেয়ে ৫ মাসের গর্ভবতী হয়ে পড়ে। গত মঙ্গলবার সকালে হারুন মিয়া ডাক্তারের কাছে গ;র্ভপা’ত করার জন্য যায়। পরে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে ভিকটিমকে বাড়িতে নিয়ে আসে অভিযুক্ত হারুন। এসময় অপরিপক্ক একটি মৃ;ত কন্যা সন্তান প্র’স;ব করে ভিকটিম।
এ ঘটনা জানাজানি হবার পর এলাকাজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়। অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন প্লাটফর্মে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। এছাড়াও অভিযুক্ত হারুন মিয়ার ফাঁ;সি দাবি করেন।
এ বিষয়ে ইউপি সদস্য আফরুজ আলী জানান, বাবা কর্তৃক ধ;র্ষি,তা মেয়ের মৃ;ত কন্যা সন্তান প্র;সব করে। এই ঘটনায় এলাকাজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে।
কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ সঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, আশঙ্কাজনক অবস্থায় মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয় বিগটিমকে। এ ঘটনার কোনো অভিযোগ এখনো আসেনি। অভিযোগের ভিত্তিতে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।
ট্যাগস :

এই নিউজটি শেয়ার করুন

‘বাবা কতৃক মেয়ের মৃ;ত সন্তান প্র;সব:

প্রকাশের সময় : ০৮:২৩:২৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ জুন ২০২৪
তিমির বনিক, মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে বাবার কুদৃষ্টির লালসার শিকার হয়ে মৃ;ত সন্তান প্র;সব করেছে প্রতিবন্ধী মেয়ে। বুধবার (৫ জুন) উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ গোলের হাওর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, পিতা হারুন মিয়া দীর্ঘ দিন যাবত তার অসুস্থ প্রতিবন্ধী মেয়েকে ধ;র্ষণ করে আসছে। ধ;র্ষ ণের ফলে ভিকটিম মেয়ে ৫ মাসের গর্ভবতী হয়ে পড়ে। গত মঙ্গলবার সকালে হারুন মিয়া ডাক্তারের কাছে গ;র্ভপা’ত করার জন্য যায়। পরে সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে ভিকটিমকে বাড়িতে নিয়ে আসে অভিযুক্ত হারুন। এসময় অপরিপক্ক একটি মৃ;ত কন্যা সন্তান প্র’স;ব করে ভিকটিম।
এ ঘটনা জানাজানি হবার পর এলাকাজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়। অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম সহ বিভিন্ন প্লাটফর্মে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। এছাড়াও অভিযুক্ত হারুন মিয়ার ফাঁ;সি দাবি করেন।
এ বিষয়ে ইউপি সদস্য আফরুজ আলী জানান, বাবা কর্তৃক ধ;র্ষি,তা মেয়ের মৃ;ত কন্যা সন্তান প্র;সব করে। এই ঘটনায় এলাকাজুড়ে শুরু হয় তোলপাড়, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে।
কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ সঞ্জয় চক্রবর্তী জানান, আশঙ্কাজনক অবস্থায় মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয় বিগটিমকে। এ ঘটনার কোনো অভিযোগ এখনো আসেনি। অভিযোগের ভিত্তিতে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।