ঢাকা , শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিছানায় আর সুখ নেই!

লাইফস্টাইল ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : ০৮:৪৬:২৯ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১ মে ২০২৪
  • / ৫৫ বার পড়া হয়েছে

সংগৃহীত ছবি

ঝগড়া হলেই সর্বনাশ হয় ঘুমের। অনেক দম্পতি ঝগড়ার কারণে প্রতি রাতে ঠিক মতো ঘুমতে পারেন না। দিনের পর দিন ভালোভাবে ঘুম না হলে শরীর ও মনে নেমে আসে ক্লান্তি। মেজাজ খিটখিটে হয়ে যায়। তবে প্রতিদিন ঝগড়ার হাত থেকে বাঁচতে একটি পথ অবলম্বন করছেন অনেকে।

ধরুন, আপনার সঙ্গীর ভয়ংকর নাক ডাকার অভ্যাস। কিংবা গায়ে পা তুলে দেওয়া বা বেশি জায়গা নিয়ে ঘুমায়। এতে আপনার সমস্যা হয়, আবার তাকে ছেড়েও থাকতে পারবেন না। তখন কী করবেন?

এই সমস্যা থেকে রেহাই পেতে অনেকেই পাশ ফিরে ঘুমান। এছাড়া এক ছাদের তলায় থেকেও সাময়িক সময়ের জন্য একসঙ্গে শুতে যান না। আলাদা ঘরের আলাদা বিছানায় ঘুমান।

আমেরিকার ম্যাকলিন হাসপাতালের মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞ স্টেফানি কলিয়ার জানান, এই পদ্ধতি প্রাথমিকভাবে সাময়িক সময়ের জন্য করা হয়। কিন্তু যখন দম্পতিরা বুঝতে পারেন একা ঘুমালে তাদের ভালো ঘুম হয় তখন বিষয়টি আর সাময়িক থাকে না। নিজের স্বাস্থ্যের কথা ভেবে এই পথে হাঁটছেন অনেকে।

ট্যাগস :

এই নিউজটি শেয়ার করুন

বিছানায় আর সুখ নেই!

প্রকাশের সময় : ০৮:৪৬:২৯ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১ মে ২০২৪

ঝগড়া হলেই সর্বনাশ হয় ঘুমের। অনেক দম্পতি ঝগড়ার কারণে প্রতি রাতে ঠিক মতো ঘুমতে পারেন না। দিনের পর দিন ভালোভাবে ঘুম না হলে শরীর ও মনে নেমে আসে ক্লান্তি। মেজাজ খিটখিটে হয়ে যায়। তবে প্রতিদিন ঝগড়ার হাত থেকে বাঁচতে একটি পথ অবলম্বন করছেন অনেকে।

ধরুন, আপনার সঙ্গীর ভয়ংকর নাক ডাকার অভ্যাস। কিংবা গায়ে পা তুলে দেওয়া বা বেশি জায়গা নিয়ে ঘুমায়। এতে আপনার সমস্যা হয়, আবার তাকে ছেড়েও থাকতে পারবেন না। তখন কী করবেন?

এই সমস্যা থেকে রেহাই পেতে অনেকেই পাশ ফিরে ঘুমান। এছাড়া এক ছাদের তলায় থেকেও সাময়িক সময়ের জন্য একসঙ্গে শুতে যান না। আলাদা ঘরের আলাদা বিছানায় ঘুমান।

আমেরিকার ম্যাকলিন হাসপাতালের মানসিক রোগ বিশেষজ্ঞ স্টেফানি কলিয়ার জানান, এই পদ্ধতি প্রাথমিকভাবে সাময়িক সময়ের জন্য করা হয়। কিন্তু যখন দম্পতিরা বুঝতে পারেন একা ঘুমালে তাদের ভালো ঘুম হয় তখন বিষয়টি আর সাময়িক থাকে না। নিজের স্বাস্থ্যের কথা ভেবে এই পথে হাঁটছেন অনেকে।