ঢাকা , শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মনোহরদীতে রাস্তা সংস্কারে অনিয়ম

প্রতিনিধির নাম
  • প্রকাশের সময় : ১১:৫৫:০৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২২
  • / ১০০ বার পড়া হয়েছে

তানভীর আহমেদ:- নরসিংদীর মনোহরদীতে কাজের বিনিময়ে খাদ্য (কাবিখা) প্রকল্পের আওতাধীন একটি কাঁচা সড়ক সংস্কারে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। সড়কটি শক্ত মাটি দিয়ে সংস্কার করার কথা থাকলেও সেখানে ফেলা হয়েছে পাশের ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে আনা ভিটি বালু। এতে সড়কটি চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি অর্থবছর উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নে কাবিখা প্রকল্পের আওতায় কোচেরচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের পাকা সড়কের মাথা থেকে খালাসিবাড়ি পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার কাঁচা সড়ক সংস্কারের উদ্যোগ নেওয়া হয়। এ জন্য ৯ টন খাদ্যশস্য বরাদ্দ দেওয়া হয়।
সরেজমিনে প্রকল্প এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, পাশের ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে ভিটি বালু এনে রাস্তাটিতে ফেলা হয়েছে। এতে রাস্তাটি চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। কোনো প্রকার যানবাহন নিয়ে রাস্তায় চলাচল করা যাচ্ছে না।

স্থানীয় বাসিন্দা সবুজ মিয়া বলেন, ‘রাস্তা সংস্কার করার আগেই ভালো ছিল। বালু ফেলার কারণে এখন চলতে পারছি না।’

তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করে প্রকল্পটির সভাপতি ইউপি সদস্য মিয়া হোসেন মোল্লা বলেন, ‘রাস্তার কাজ এখনো শেষ হয়নি। ওপরে মাটি ফেললে ঠিক হয়ে যাবে।

এই নিউজটি শেয়ার করুন

x

মনোহরদীতে রাস্তা সংস্কারে অনিয়ম

প্রকাশের সময় : ১১:৫৫:০৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২২

তানভীর আহমেদ:- নরসিংদীর মনোহরদীতে কাজের বিনিময়ে খাদ্য (কাবিখা) প্রকল্পের আওতাধীন একটি কাঁচা সড়ক সংস্কারে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। সড়কটি শক্ত মাটি দিয়ে সংস্কার করার কথা থাকলেও সেখানে ফেলা হয়েছে পাশের ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে আনা ভিটি বালু। এতে সড়কটি চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি অর্থবছর উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নে কাবিখা প্রকল্পের আওতায় কোচেরচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের পাকা সড়কের মাথা থেকে খালাসিবাড়ি পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার কাঁচা সড়ক সংস্কারের উদ্যোগ নেওয়া হয়। এ জন্য ৯ টন খাদ্যশস্য বরাদ্দ দেওয়া হয়।
সরেজমিনে প্রকল্প এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, পাশের ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে ভিটি বালু এনে রাস্তাটিতে ফেলা হয়েছে। এতে রাস্তাটি চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়েছে। কোনো প্রকার যানবাহন নিয়ে রাস্তায় চলাচল করা যাচ্ছে না।

স্থানীয় বাসিন্দা সবুজ মিয়া বলেন, ‘রাস্তা সংস্কার করার আগেই ভালো ছিল। বালু ফেলার কারণে এখন চলতে পারছি না।’

তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করে প্রকল্পটির সভাপতি ইউপি সদস্য মিয়া হোসেন মোল্লা বলেন, ‘রাস্তার কাজ এখনো শেষ হয়নি। ওপরে মাটি ফেললে ঠিক হয়ে যাবে।